দেশে দেশে আনন্দমার্গ

আনন্দমার্গীয় বিধিতে অন্নপ্রাশন

পুরুলিয়া ঃ গত ১৮ই সেপ্টেম্বর পুরুলিয়া জেলার আনন্দমার্গের ভুক্তিপ্রধান শ্রী প্রফুল্ল কুমার মাহাতোর বাসভবনে আনন্দমার্গের অখণ্ড কীর্ত্তন অনুষ্ঠিত হয়৷ কীর্ত্তনশেষে মিলিত সাধনার পর শ্রী প্রফুল্ল মাহাতোর পৌত্রী ও শ্রী প্রভাতাংশু মাহাত ও মৌসুমী মাহাতর কন্যার অন্নপ্রাশন ও নামকরণ অনুষ্ঠান আনন্দমার্গীয় বিধিতে অনুষ্ঠিত হয়৷ এতে পৌরোহিত্য করেন অবধূতিকা আনন্দ সুমিতা আচার্যা৷

নদীয়ায় ব্লক লেবেল সেমিনার

গত ৩০শে সেপ্টেম্বর নদীয়া জেলার মদনপুর ও পাটিকাবাড়ী আনন্দমার্গ স্কুলে ব্লক লেবেল সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়৷ মদনপুরে এই ব্লক লেবেল সেমিনারে মুখ্য প্রশিক্ষক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শ্রীবৃন্দাবন বিশ্বাস, পাটিকাবাড়ী আনন্দমার্গ স্কুলের সেমিনারে মুখ্য প্রশিক্ষক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গোরাচাঁদ দত্ত ও মনোরঞ্জন বিশ্বাস৷ সেমিনারে প্রায় শতাধিক স্থানীয় আনন্দমার্গীরা উপস্থিত ছিলেন৷

আনন্দনগরে বাবা স্মৃতি সৌধে’ অখন্ড কীর্ত্তন

গত ১৬ই সেপ্টেম্বর আনন্দনগরে বাবার স্মৃতি সৌধে প্রতিমাসের মত এমাসেও অখন্ড কীর্ত্তনের অনুষ্ঠান হয় এই কীর্ত্তন অনুষ্ঠানে আনন্দমার্গের বিভিন্ন সুকল, কলেজের ছাত্র-ছাত্র রা, আশ্রমবাসীবৃন্দ ও চতুষ্পার্শের গ্রামবাসীরা যোগদান করেন৷ এছাড়া কীর্ত্তন শেষে চিতমুর বিশিষ্ট আনন্দমার্গী দীপু গড়াঞ এর পুত্রের অন্নপ্রাশন আনন্দমার্গীয় সমাজ শাস্ত্রানুসারে অনুষ্ঠিত হয়৷ এতে পৌরোহিত্য করেন আচার্য মুক্তানন্দ অবধূত৷

বহরমপুর, নিমতলা গ্রীণফার্ম আনন্দমার্গ স্কুলে বার্ষিক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

বহরমপুর, গ্রীনফার্ম ঃ স্থানীয় অক্ষয় সমিতির ক্রীড়াঙ্গনে সুদৃশ্য মঞ্চে বিদ্যালয়ের অধ্যক্ষা অবধূতিকা আনন্দপূর্ণজ্যোতি আচার্যার উদ্যোগে ও বিদ্যালয়ের শিক্ষিকাবৃন্দের অকুণ্ঠ সহযোগিতায় বহরমপুর গ্রীণফার্ম আনন্দমার্গ স্কুলের বার্ষিক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানটি সাড়ম্বরে অনুষ্ঠিত হ’ল৷ শুরুতেই ‘মহর্ষি প্রণাম তোমায়.....’ একটি আবৃত্তির মধ্যে দিয়ে নৃত্য সহযোগে অনুষ্ঠানটি শুরু হয়৷ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আনন্দমার্গ প্রচারক সংঘের প্রবীণ সন্ন্যাসী আচার্য সুতীর্থানন্দ অবধূত৷ প্রধান অতিথি ছিলেন বহরমপুর গার্লস্ কলেজের অধ্যাপক কাজল কুমার সাহা৷ বিশেষ অতিথি ছিলেন অবধূতিকা আনন্দসংশুদ্ধা আচার্যা, এডুকেশন ইন চার্জ, ওমেন ও

আনন্দনগরে গুরুকুল দিবস উদযাপন

গত ৭ই সেপ্টেম্বর গুরুকুল দিবসে আনন্দমার্গ হাইসুকল প্রাইমারী স্কুলে ও ভেটেনারী কলেজে আলাদা আলাদা ভাবে ছাত্র শিক্ষক সকলে মিলিত হন৷ সেখানে গুরুকুলের প্রবক্তা তথা প্রতিষ্ঠাতা শ্রীশ্রী আনন্দমূর্ত্তিজীর প্রতিকৃতিতে মাল্যদান করে অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা হয়৷ অনুষ্ঠানে ছাত্র-ছাত্রা ও শিক্ষকবৃন্দ বাবার প্রতিকৃতিতে পূষ্পার্ঘ দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন৷ আজকের এ অবক্ষয়ের দিনে গুরুকূলের শিক্ষা ব্যবস্থার মহত্ব সম্পর্কে বিভিন্ন বক্তা তাদের বক্তব্য তুলে ধরেন৷ আনন্দনগর হাইস্কুলে বক্তব্য রাখেন আচার্য বিবেকানন্দ অবধূত প্রাইমারী স্কুলে বক্তব্য রাখেন আচার্য গুরুদত্তানন্দ অবধূত ভেটেনারী কলেজে বক্তব্য রাখেন আচার্য দীপাঞ

আনন্দনগরে কৌশিকী দিবস উদ্যাপন

গত ৬ই সেপ্টেম্বর কৌশিকী দিবস উপলক্ষ্যে ৬দিন ব্যপী আনন্দনগরের বিভিন্ন গ্রামে ছাত্র ছাত্রাদের কৌশিকী নৃত্যের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়৷ আনন্দমার্গ সুকল-কলেজেও ওইদিন কৌশিকী নৃত্যের প্রতিযোগিতা হয় ও কৃতী প্রতিযোগীদের পুরস্কৃত করা হয়৷ গ্রামে গ্রামে মার্গী ভাই বোনেদের মধ্যেও কৌশিকী নৃত্যের প্রতিযোগিতা হয়৷

চিতমু, খটঙ্গা, পুন্দাগ,পটনঝুড়ি, গুড়িডিহি প্রভৃতি গ্রামে এধরণের প্রতিযোগিতায় হয়৷ আনন্দমার্গ শিশুসদনের ছেলে মেয়েরা এই নৃত্যে বিশেষ কৃতিত্বের পরিচয় দেয়৷

মেদিনীপুর আনন্দমার্গ স্কুলে কৌশিকীনৃত্য প্রতিযোগিতা ও প্রশিক্ষণ

মেদিনীপুর মেদিনীপুর শহরের কেরানিতলায় অবস্থিত আনন্দমার্গ স্কুলে গত ৬ই সেপ্টেম্বর,২০১৮ (বৃহস্পতিবার) কৌশিকী নৃত্য প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়৷ প্রথমে বিদ্যালয়ের তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রছাত্রাদের মধ্যে ও পরে অভিভাবিকাদের মধ্যে এই প্রতিযোগিতা তৃতীয় ও চতুর্থশ্রেণীর ছাত্রছাত্রাদের মধ্যে ও পরে অভিভাবিকাদের মধ্যে এই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়৷ প্রতিযোগিতার পূর্বে বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রারা সমবেতভাবে ‘প্রভাত সঙ্গীত’ পরিবেশন করে৷ এরপরে প্রতিযোগিতা শুরু হয়৷ ৩৬জন প্রতিযোগীর মধ্যে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয়স্থান অধিকার করে যথাক্রমে সোহন মোদক, অর্পিতা পাত্র ও সমীর মল্লিক৷ অভিভাবিকাদের মধ্যে সেরা তিনজনকে বেছে নেওয়

আনন্দনগরের প্রভাত সঙ্গীত দিবস উদ্যাপন

আনন্দনগরবাসীর প্রাত্যহিক জীবনে-প্রভাতসঙ্গীত হ’ল একটা গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়৷ কিন্তু ১৪ই সেপ্টেম্বরের দিনটি বিশেষ গুরুত্ব বহন করে চলেছে৷ শিশু সদনের ছেলেমেয়েরা সেদিন গুরুদেবের চরণে প্রভাত সঙ্গীতাঞ্জলী অর্ঘ্য দিয়ে থাকে৷ প্রাইমারী স্কুলের ছাত্র শিক্ষক সবাই মিলেও আন্তরিকতার সঙ্গে প্রভাত সঙ্গীত পরিবেশন করে’ নিজেরাই যে শুধু আনন্দ পায় তা নয় তার তরঙ্গ অভিভাবকদেরও মুগ্দ করে দেয়৷

আনন্দমার্গের পক্ষ থেকে বৃক্ষরোপণের উদ্দেশ্যে চারা বিতরণ

ঝাড়গ্রাম ঃ ঝাড়গ্রাম জেলার গোপীবল্লভপুর ব্লকের অন্তর্গত রামচন্দ্রপুর গ্রামে গত ২৩শে সেপ্টেম্বর আনন্দমার্গের ‘পিক্যাপ’-এর পক্ষ থেকে গ্রামের ৮০টি পরিবারের মধ্যে আম, সবেদা, পেয়ারা, নেবু ইত্যাদির চারা বিতরণ করা হয়৷ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন আচার্য সুধাক্ষরানন্দ অবধূত, আচার্য কল্পনাথানন্দ অবধূত, স্থানীয় পঞ্চায়েৎ সদস্য আশীষ দে, রবীন্দ্রনাথ বেরা প্রমুখ৷ সমগ্র অনুষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনায় ও পরিচালনা করেন সজল সেনাপতি৷ প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে আনন্দমার্গের ‘পিক্যাপ’  Prevention of cruelty to animals and plants) সংঘটনটি নব্যমানবতাবাদ তত্ত্বের ওপর আধারিত একটি সংঘটন৷

আনন্দমার্গ স্কুলের বার্ষিক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

আরামবাগ, হুগলী ঃ গত ২রা অক্টোবর আরামবাগের ইন্দ্রপল্লী আনন্দমার্গ স্কুলের বার্ষিক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান জাকজমক পূর্ণ ভাবে স্থানীয় প্রেক্ষাগৃহে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল৷ অনুষ্ঠানে সভাপতির আসন অলঙ্কৃত করেন আচার্য সুবিকাশানন্দ অবধূত, প্রধান অতিথি ছিলেন আরামবাগ পৌরসভার পৌরপ্রধান শ্রীস্বপন নন্দী, বিশেষ অতিথি ছিলেন অবধূতিকা আনন্দবিমোহা আচার্যা৷ অনুষ্ঠানে আনন্দমার্গের শিক্ষা ব্যবস্থা সম্পর্কে বক্তব্য রাখেন আচার্য সুবিকাশানন্দ অবধূত ও অবধূতিকা আনন্দবিমোহা আচার্যা৷ অনুষ্ঠানে স্কুলের ছোট ছোট শিশুরা কবিতা, গান, ছড়া প্রদর্শনের মাধ্যমে উপস্থিত দর্শকদের মোহিত করে৷ দর্শকরাও হাততালি দিয়ে শিশুদের উৎসাহিত করে অনুষ্ঠানট